• ঢাকা
  • শনিবার, ১৯শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৫ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
প্রকাশিত: ১০ জুন, ২০২১
সর্বশেষ আপডেট : ১০ জুন, ২০২১

খুলনা বিভাগের সব ইউপি নির্বাচন স্থগিত

অনলাইন ডেস্ক

করোনাভাইরাসের প্রকোপ বৃদ্ধি পাওয়ায় খুলনা বিভাগের ১১৯টি ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) নির্বাচন স্থগিত করেছে নির্বাচন কমিশন।আজ বৃহস্পতিবার (১০ জুন) নির্বাচনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে জরুরি বৈঠকে বসে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

 

সভা শেষে সাংবাদিকদের ইসি সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার জানান, ২১ জুন নির্বাচনের জন্য নির্ধারিত ৩৬৭টির মধ্যে করোনার উচ্চ ঝুঁকি সম্পন্ন এলাকা খুলনা বিভাগের সকল ইউনিয়ন পরিষদ, নোয়াখালী, চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার জেলার ইউনিয়ন পরিষদসহ মোট ১৬৩ টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন স্থগিত করা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে বাগেরহাট জেলায় ৬৮টি, খুলনায় ৩৪টি, সাতক্ষীরায় ২১টি, নোয়াখালীতে ১৩টি, চট্টগ্রামে ১২টি এবং কক্সবাজার জেলায় ১৫টি ইউনিয়ন পরিষদ।

এর আগে করোনার কারণে ভোটের তারিখ পুনর্বিবেচনায় নির্বাচন কমিশনকে চিঠি দেয় মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

এদিকে দেশে করোনা শনাক্তের হার ১০ শতাংশের ওপর। সীমান্তের জেলাগুলোয় সংক্রমণ হার ঊর্ধ্বমুখী। সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে পাঁচ শর্ত দিয়ে দেশব্যাপী বিধিনিষেধের মেয়াদ ১৬ জুন পর্যন্ত বাড়িয়েছে সরকার। সীমান্তের বিভিন্ন এলাকায় চলছে লকডাউন ও কঠোর বিধিনিষেধ।

এরই মধ্যে ২১ জুন ৩৭১টি ইউপি নির্বাচন হওয়ার কথা ছিল। যার মধ্যে উচ্চ সংক্রমিত ছয় জেলায় দেড় শতাধিক ইউনিয়ন রয়েছে। এ অবস্থায় এখনই ভোট না করতে নির্বাচন কমিশনকে চিঠি দেন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ ও খুলনার বিভাগীয় কমিশনার।

এছাড়া গত ৫ জুন ভোটের তারিখ পেছানোর সুপারিশ করে ইসিকে চিঠি দেয় রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইডিসিআর)।

আরও পড়ুন