• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ৩রা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৯শে শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
প্রকাশিত: ২৫ জুন, ২০২১
সর্বশেষ আপডেট : ২৫ জুন, ২০২১

অবশেষে বেরিয়ে এলো ময়মনসিংহে কলেজ ছাত্র ইকবাল হত্যার রহস্য

অনলাইন ডেস্ক

ময়মনসিংহের তারাকান্দার পলাশকান্দা গ্রামের আব্দুর রউফের ছেলে কলেজ ছাত্র শাহীনুর আলম ইকবাল (১৯) হত্যার রহস্য উদঘাটন করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

 

এ ঘটনায় জড়িত একই গ্রামের হাজী আব্দুল মান্নান ওরফে আদু বেপারীর ছেলে আব্দুল হেলিমকে বৃহস্পতিবার গ্রেফতারের পর ইকবাল হত্যার রহস্য উদঘাটন হয়। পারিবারিক বিরোধের জেরে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে এই হত্যাকান্ড সংঘটিত হয়।

গ্রেফতারকৃত ইকবাল নিজেকে জড়িয়ে হত্যার বিবরন দিয়ে শুক্রবার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রে মাহবুব আক্তার এর আদালতে স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দি প্রদান করেছে।

ডিবির ওসি শাহ কামাল জানান, গত ৩১ মে’২১ কলেজ ছাত্র শাহীনুর আলম ইকবাল রাত ১০টার দিকে খাবার খেয়ে পাশের দোকানে যায়। সেখান থেকে সে আর বাড়ী ফেরেনি। পরের দিন তারাকান্দা থানায় নিখোঁজ জিডি করে তার বাবা।

৫ দিন পর নিখোঁজ কলেজ ছাত্রের মৃতদেহ পলাশকান্দা একটি হাউজিং প্রজেক্টের সেফটি ট্যাংকির ভিতর থেকে উদ্ধার হয়। এ ঘটনার মৃতের বড় ভাই সেলিম মিয়া অজ্ঞাতনামাদের বিরুদ্ধে তারাকান্দা থানায় হত্যা মামলা করেন।

ওসি শাহ কামাল আরো বলেন, পারিবারিক কারণেই তাকে হত্যা করা হয়েছে বলে হেলিম আদালতে ও পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে।

আরও পড়ুন

  • অপরাধ ও দুর্নীতি এর আরও খবর