শুক্রবার ০২ ডিসেম্বর ২০২২ ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

হ্যারি পটারের ‘হ্যাগ্রেইড’ আর নেই
নিউজ ডেস্ক:
প্রকাশ: সোমবার, ১৭ অক্টোবর ২০২২, ০৫:৩২ সকাল | অনলাইন সংস্করণ

ভালো নাম তার রবি কলট্রেইন, দারুণ খ্যাতি লাভ করেছেন হ্যারি পটার সিরিজে অভিনয় করে, মারা গিয়েছেন গতকাল, ৭২ বছর বয়সে। তার মৃত্যুর খবর জানিয়েছেন এজেন্ট।

তিনি ছিলেন দুনিয়া কাঁপানো সিরিজটির অভিনেতা-অভিনেত্রীদের খেলার রক্ষক, তাদের বন্ধু।

 

রবি কলট্রেইন হ্যারি পটার সিরিজের ছবিগুলোতে অভিনয় করেছেন ২০০১ থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত টানা। ফলে সারা বিশ্বেই লাভ করেছেন খুব জনপ্রিয়তা।

রবি কলট্রেইন জন্মেছেন স্কটল্যান্ডের রদারগ্লেইনে ১৯৫০ সালের ৩০ মার্চ। ভালো নাম অ্যান্টনি রবার্ট ম্যাকমিলান। তার মা ছিলেন একজন শিক্ষক ও পিয়ানো বাদক। বাবা ছিলেন একজন চিকিৎসক।

২০ বছরের কাছাকাছি সময়ে অভিনয়ে চলে আসেন। মঞ্চের নাট্যাভিনয়ের জন্য নিজের নাম রাখেন কলট্রেইন, জ্যাজ স্যাক্সোফোন বাদক জন কলট্রেইনকে ভালোবেসে। অভিনয় করতেন মঞ্চে, ছিলেন কৌতুকাভিনেতা। কৌতুকের দারুণ দক্ষতার সুবাদে ১৯৮২ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত চলা টানা ৩০ বছর অভিনয় করেছেন ‘দি কমিক স্ট্রিপ প্রেজেন্টস’ নামের কৌতুক সিরিজে।

তবে তাকে সবচেয়ে বিখ্যাত করেছে হ্যারি পটার সিরিজ। এছাড়াও দারুণ সফল হয়েছেন জেমস বন্ড সিরিজের দুটি ছবি ‘গোল্ডেন আই’ ও ‘দি ওয়ার্ল্ড ইজ নট অ্যানাফ’-এ অভিনয়ের সুবাদে।

২০০৬ সালের নতুন বছরে সম্মাননা হিসেবে রবি কলট্রেইনকে ‘ওবিই’ পদকে ভূষিত করেছেন ব্রিটেনের প্রয়াত রাণী দ্বিতীয় এলিজাবেথ। পদকটি দেওয়া হয়েছে সিনেমা ও নাটকে অনবদ্য অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে। এছাড়াও কলট্রেইন লাভ করেছেন ১৯৯০ সালে ‘ইভিনিং স্টান্ডার্ড ব্রিটিশ ফিল্ম অ্যাওয়ার্ড-পিটার শেলারস অ্যাওয়ার্ড ফর কমেডি’। ২০১১ সালে ‘ব্রিটিশ অ্যাকাডেমি স্কটল্যান্ড অ্যাওয়ার্ড’ লাভ করেছেন সিনেমাতে অসাধারণ অভিনয়ের স্বীকৃতি হিসেবে।

 

রবি কলট্রেইন বিয়ে করেছেন রোনা গ্যামেলকে। ১৯৯৯ সালের ১১ ডিসেম্বর। তাদের দুটি সন্তান আছে। ছেলেটির নাম স্পেনসার। ১৯৯২ সালে জন্মেছে। মেয়েটি তাদের অ্যালিস। জন্মেছে ১৯৯৮ সালে। তবে তাদের বাবা-মা আলাদা থাকতে শুরু করেছেন ২০০৩ সালে। পরে তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে।

তিনি স্কটল্যান্ডের স্বাধীনতার জন্য মতামত দিয়েছেন ২০১৪ সালে।

রবি কলট্রেইন হাড়ের রোগে আক্রান্ত হয়েছেন। সারাদিন তার হাড়ের গিটগুলোতে ব্যাথা করে-বলে জানিয়েছেন। ফলে চলাফেরার শক্তিও হারিয়ে ফেলেছেন রবি কলট্রেইন। ২০১৬ সাল থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত তিনি হুইল চেয়ারে চলাফেরা করতে বাধ্য হয়েছেন। জীবনের শেষ দুটি বছর চরম অসুস্থতায় কেটেছে।

রবি কলট্রেইন মারা গিয়েছেন ফোর্থ ভ্যালি রয়্যাল হসপিটালে।

« পূর্ববর্তী সংবাদ পরবর্তী সংবাদ »






সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ